10th, December, 2022, 4:04 am

টিসির শঙ্কায় স্কুল ছাত্রীর আত্মহত্যা

শ্রীনগর প্রতিনিধি : শ্রীনগরে স্কুল থেকে টিসির শঙ্কায় এক দশম শ্রেনির ছাত্রী আত্মহত্যা করেছে বলে অভিযোগ উঠেছে। উপজেলার আলহাজ কাজী ফজলুল হক উচ্চ বিদ্যালয় কতৃপক্ষ ও প্রধান শিক্ষকের বিরুদ্ধে এ অভিযোগ করেন ১০ম শ্রেনির ছাত্রী সিনথিয়া (১৪) এর পরিবার। গত ২০ ফেব্রুয়ারি বৃহস্পতিবার দুপুরে উপজেলার দক্ষিন মধ্য কামারগাঁও গ্রামে ওই ছাত্রী বসত ঘরের আড়ার সাথে গলায় ফাঁস দিয়ে আত্মহত্যা করে। পুলিশ লাশটি উদ্ধার করেছে। স্থানীয় ও পারিবারিক সূত্রে জানা যায়, ওই এলাকার আব্দুর রহিমের মেয়ে দশম শ্রেনির স্কুল ছাত্রী পদ্মা নদীর পাড়ে চাচত মামা সাকিবের সাথে কথা বলতে থাকে। এ সময় এলাকার কয়েক জন বখাটে তাদের পথ রোধকরে মারধরসহ মিথ্যা অপবাদ দিয়ে আটক করে। পরে প্রধান শিক্ষকের কাছে নিয়ে গেলে, তিনি টিসি দেওয়ার হুমকি দেয়। বখাটেদের মিথ্যা অপবাদ ও টিসির শঙ্কায় সিনথিয়া আত্মহত্যা করেছে বলে ওই ছাত্রীর বাবা আব্দুর রহিম জানায়। এ ছারা তিনি আরো বলেন, বখাটে ছেলেরা মেয়েকে জড়িয়ে মিথ্যা অপবাদ দিয়ে বিদ্যালয় সংশ্লিষ্টদের জানালো আর তাদের কথা বিশ^াস করেই শিক্ষক সিনথিয়াকে টিসি দিয়ে বের করার হুমকির দেয়। সিনথীয়ার মা মিনারা বেগম বলেন, বিদ্যালয়ের সভাপতি ও স্থানীয় ইউপি চেয়ারম্যান কাজী মনোয়ার হোসেন শাহাদাত প্রধান শিক্ষককে টিসি দেয়ার জন্য বলেছেন। এছারা সে আমাকে বলেছেন তোমার মেয়ে ভালনা। আমার স্কুলে সে পড়তে পারবেনা। আমি এখনই প্রধান শিক্ষককে টিসি দেয়ার কথা বলে দিচ্ছি। এলাকার বখাটেদের নাম ঠিকানা তিনি জানতে পারেননি। স্কুল প্রধান শিক্ষক মো. সেলিম হোসেন তার বিরুদ্ধে আনিত অভিযোগ সম্পুর্ন অস্বীকার করে তিনি বলেন, সিনথীয়াকে কোন টিসি দেয়া হয়নি। শ্রেনী কার্যক্রম শুরু হওয়ার অনেক পরে সে ক্লাসে আসে। তাকে জিজ্ঞেস করলে তার আত্মীয়ের সাথে নদীর চরে ঘুরতে যাওয়ার কথা বলে। পরে তাকে মোবাইল ফোনে ডেকে এনে বিস্তরীত জানানো হয়। হয়ত তার মা তাকে গালমন্ধ করার কারণে সিনথীয়া আত্মহত্যা পথ বেছে নেয়। এ বিষয় স্কুল সভাপতি ও ভাগ্যকুল ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান কাজী মনোয়ার হোসেন শাহাদাতের কাছে জানতে চাইলে তিনি বলেন, আমি প্রধান শিক্ষককে টিসি দেয়ার বিষয়ে কোনও কথা বলিনি। এব্যাপারে শ্রীনগর থানার অফিসার ইনচার্জ মো. হেদায়াতুল ইসলাম ভূঞা জানান, লাশ উদ্ধার করে ময়না তদন্তের জন্য পাঠানো হয়েছে। এঘটনায় একটি অপমৃত্যুর মামলা হয়েছে।

Comments are closed.

     More News Of This Category

follow us on facebook page

error: sorry please